সোনাই উন্নয়ন খণ্ডে এপি সভাপতি নির্বাচন নিয়ে চলছে নাটক, নির্বাচন অনুষ্ঠান ব্যর্থ

0
ছবি : সংগৃহিত
আবুল কালাম লস্কর, তরঙ্গ বার্তা, সোনাই : সোনাই উন্নয়ন খণ্ডে আজ আঞ্চলিক পঞ্চায়েত সভাপতি নির্বাচন ও শপথ গ্ৰহণ অনুষ্ঠান নিয়ে দিনভর চলে নাটক। পঞ্চায়েত ধারা অনুযায়ী সকাল দশটায় প্রিসাইডিং অফিসার পিনাক পানি নাথ এপি সভাপতি নির্বাচন ও শপথ বাক্যের জন্য এপি সদস্যদের ডাকেন কার্য্যলায়ে। এতে স্বাধীনবাজার জিপির এপি সদস্য ইউসুফ দিলদার লস্কর, শীলডুবি জিপির এপি সদস্য ফয়জুল হক আহমেদ, দক্ষিণ মোহনপুর জিপির এপি সদস্য মছদ্দর আলী আহমেদ, সুন্দরী জিপির এপি সদস্য জহিরুল ইসলাম বড়ভুইয়া, হাতিখাল জিপির এপি সদস্য সিমি বেগম চৌধুরী, সৈদপুর জিপির এপি সদস্যা লাবি রানী রায়, নতুনরামনগর জিপির এপি সদস্যা জাহানারা বেগম লস্কর, উত্তর কৃষ্ণপুর জিপির এপি সদস্যা সুলতানা বেগম লস্কর উপস্থিত হন।
অন্যদিকে, বেলা এগরোটা নাগাদ কচুদরম জিপির এপি সদস্য মিজানুর রহমান লস্কর এসে তার নানা অসুবিধা দেখিয়ে নির্বাচন বয়কট করে চলে যান। পরে আবারও প্রিসাইডিং অফিসার পৌনে বারোটা পর্যন্ত অপেক্ষা করেন। স্বাধীনবাজার জিপির এপি সদস্য এম ইউ মিজানুর রহমান লস্কর, দক্ষিণ কৃষ্ণপুর জিপির এপি সদস্য আতিকুর রহমান বড়ভুইয়া, দক্ষিণ সৈদপুর জিপির এপি সদস্য ফখরুল ইসলাম লস্কর, সাতকরাকান্দি জিপির এপি সদস্য রুহিনা আক্তার লস্কর, সোনাবাড়িঘাট জিপির এপি সদস্যা সুমি বেগম মজুমদার, রাঙ্গিরঘাট জিপির এপি সদস্যা রিমনা আক্তার লস্কর কেউ উপস্থিত হননি।

এতে উপধারা মতে দুই তৃতীয়াংশ সদস্য উপস্থিত না হওয়ায় প্রিসাইডিং অফিসার বাধ্য হন মঙ্গলবারের এপি সভাপতি নির্বাচন ও শপথ বাক্য অনুষ্ঠান বাতিল করতে। সোনাই উন্নয়ন খণ্ডে এপি সদস্য রয়েছেন মোট ১৪ জন। এর মধ্যে কংগ্রেসের বারো ও নির্দল দুইজন রয়েছেন।
স্বাধীনবাজার জিপির এপি সদস্য ইউসুফ দিলদারকে সভাপতি ও শীলডুবি জিপির এপি সদস্য ফয়জুল হককে উপ সভাপতি ঠিক করে উন্নয়ন খণ্ডে উপস্থিত হন নির্দলের দুই এপি সহ মোট আটজন এপি সদস্য। এতে বিদ্রোহ দেখা দেয় কংগ্রেসের বাকি ছয় এপি সদস্যের মধ্যে। ফলে কংগ্রেসের এপি সদস্যদের মধ্যে সংঘাত সৃষ্টি হয়ে দুই পক্ষে বিভক্ত হন। আঞ্চলিক পঞ্চায়েতের সভাপতির পদ প্রার্থী ফয়জুল হক আহমেদ, বিদ্রোহী ছয়জন এপি অন্য দলের হয়ে কাজ করছেন বলে অভিযোগ তুলে বলেন, এরা স্বার্থান্বেষী কংগ্রেসি।
তিনি দৃঢ়ভাবে বলেন, তাদের আটজনের মধ্যে এপি সভাপতি ও উপসভাপতি নির্বাচন হবে। তিনি অভযোগ তুলে বলেন, বিদ্রোহী ছয় এপি সদস্য সোনাইয়ে ঘৃণ্য রাজনীতি শুরু করেছেন।

এদিকে এদিন দুপুর একটায় সোনাইয়ে সাংবাদিক বৈঠক ডেকে কচুদরম জিপির এপি সদস্য মিজানুর রহমান লস্কর, দক্ষিণ কৃষ্ণপুর জিপির এপি সদস্য আতিকুর রহমান লস্কর, জেলা যুব কংগ্রেসের সম্পাদক শাহীন লস্কর, সোনাই ব্লক কংগ্রেসের সম্পাদক আফসর চৌধুরী, জেলা কংগ্রেসের প্রাক্তন সম্পাদক ফারুক আহমেদ লস্কর, কংগ্রেস কর্মী আতাবুর লস্কররা বলেন, কংগ্রেস পক্ষ থেকে সোনাই এপি সভাপতি নির্বাচিত না করায় তারা আজকের সরকারি ভাবে নির্বাচন ও শপথবাক্য অনুষ্ঠান বাতিল করেছেন। তারা বলেন, জেলা কংগ্রেস, ব্লক কংগ্রেস ও প্রাক্তন বিধায়ক এনামুল হক লস্কর কংগ্রেসের বারোজন এপিকে নিয়ে বৈঠক করে সভাপতি ঘোষণা করলে এই ছয় এপি ভোট দেবেন। না হলে তারা সোনাই উন্নয়ন খণ্ডে সভাপতি নির্বাচন অনুষ্ঠানে উপস্থিত হবেন না।
এপি সদস্য মিজানুর অভিযোগ তুলে বলেন, স্বাধীনবাজার এপি সদস্য ইউসুফ দিলদারের প্রতিনিধি জুনু বাবু লস্কর ফোনে তার সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে, নির্বাচন অনুষ্ঠানে উপস্থিত না হলে তাকে মারার হুমকিও পর্যন্ত দেন বলে অভিযোগ তুলেন মিজানুর।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here