কাটিগড়ায় কর্তব্যরত সাংবাদিকদের ওপর প্রাণঘাতী হামলা, দুষ্কৃতিদের গ্রেপ্তারের দাবিতে পুলিশ সুপারকে সময়সীমা বেঁধে চরমপত্র দিল গিল্ড

0

তরঙ্গবার্তা প্রতিবেদক, কাটিগড়া: কাটিগড়ায় কর্তব্যরত সাংবাদিকদের ওপর প্রাণঘাতী হামলার ২৪ ঘন্টা পেরিয়ে গেলেও রহস্যজনক ভাবে কাটিগড়া পুলিশের সাধ্য হল না অভিযুক্তদের পাকড়াও করার। এতে বেজায় চটেছে কাটিগড়া ওয়ার্কিং জার্নালিস্ট গিল্ড।

শুধু গিল্ড নয়, চটে লাল বরাকের অন্যান্য সাংবাদিক সংস্থাগুলো। গিল্ডের পক্ষে রবিবার দুপুরে কাটিগড়া থানার ওসি নয়নমনি সিনহা মারফৎ কাছাড়ের পুলিশ সুপারকে সময়সীমা বেঁধে এক চরমপত্র তুলে দেওয়া হয়েছে।

গিল্ডের পক্ষে সভাপতি মঞ্জুর আহমেদ ও সাধারণ সম্পাদক সুমন দাসরা জানান- কাটিগড়ার আইন শৃঙ্খলার চরম অবনতি ঘটছে। চুরি, ডাকাতি, খুন, ধর্ষণ, অপহরণ ও ছিনতাই ইত্যাদি ক্রমান্বয়ে বাড়ছে কিন্তু ঠুঁটো জগন্নাথের ভূমিকায় পুলিশ। এবার সংযোজন প্রকাশ্যে জাতীয় সড়কে সাংবাদিকদের ওপর প্রাণঘাতী হামলা। হামলার পরই থানায় মামলা করা হলেও ২৪ ঘন্টা পেরিয়ে গেলেও একজন হামলাকারীকেও পাকড়াও করতে পারেনি পুলিশ যা অসহনীয়।

গিল্ডের কর্মকর্তারা রবিবার কাটিগড়া থানার ওসি মারফৎ কাছাড়ের পুলিশ সুপারকে চরমপত্র প্রদান করে বলেন, যদি আগামী কাল অর্থাৎ সোমবার সকাল ১০টার মধ্যে অভিযুক্তদেরে পাকড়াও না করা হয় তাহলে সোমবার থানা চত্বরে অনির্দিষ্টকালীন অবস্থান ধর্মঘটে বসবে বরাক উপত্যকার বিভিন্ন দৈনিকের কর্মরত কাটিগড়ার সাংবাদিকরা। এতে বরাকের অন্যান্য সাংবাদিক সংঘটনগুলোর প্রতিনিধিরাও উপস্থিত থাকবে।

উল্লেখ্য, শনিবার সন্ধ্যায় কালাইনের লক্ষীপুরে এক মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থলেই হেম বাবু সিনহা ও গৌর দাস সিনহা নামক দুই ব্যক্তির মৃত্যু হয়। এই ঘটনার প্রতিবাদে জাতীয় সড়ক অবরোধ করে উত্তেজিত স্থানীয় জনতা। একাংশ যুবক এতটাই বেপরোয়া হয়ে উঠেছিল যে সংবাদ সংগ্রহে যাওয়া সাংবাদিক (যুগশঙ্খের প্রতিনিধি) ইমাদ উদ্দিন মজুমদার, প্রান্তজ্যোতির সুপ্রিয় দত্ত, নববার্তার রফিক আহমদ মজুমদারের ওপর প্রাণঘাতী হামলা চালালেও বরাত জোরে প্রাণে বাঁচলেন তারা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here