সমস্ত জল্পনা-কল্পনার শেষে কাটিগড়া ব্লক আঞ্চলিক পঞ্চায়েত বিজেপির দখলে

0
ছবি : নিজস্ব

শমীন্দ্র পাল, তরঙ্গ বার্তা, কাটিগড়া : অনেক জল্পনা-কল্পনার পর অবশেষে আজ কাটিগড়া ব্লকের আঞ্চলিক পঞ্চায়েত সভানেত্রী ও সহ-সভাপতি পদে বিজেপির প্রার্থীরা জয় হাসিল করেন। মঙ্গলবার পূর্ব নির্ধারিত সূচি অনুযায়ী স্থানীয় কাটিগড়া খন্ড উন্নয়ন আধিকারিকের কার্য্যালয়ে সকাল ১১টায় শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান আরম্ভ হয়।

খন্ড উন্নয়ন আধিকারিক সুজা হুসেন মজুমদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠান শুরু হয়।এ অনুষ্ঠানে জেলা শাসকের প্রতিনিধি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অলক কান্তি বিশ্বাস, প্রধান অথিতি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কাটিগড়ার বিধায়ক অমরচাঁদ জৈন।

শুরু হয় যথারীতি শপথ গ্রহণ‌ অনুষ্ঠান, আঞ্চলিক পঞ্চায়েত সভানেত্রী নির্বাচনের প্রসঙ্গ উঠতেই কাতিরাইল জিপির এপি সদস্য মনমোহন নাথ, দুধপুর-গনিরগ্রাম জিপির কংগ্রেস দলের বিজয়ী এপি সদস্যা বাবলি দাসের নাম প্রস্তাব করেন। সঙ্গে সঙ্গে রাজারটিলা এপি সদস্যা জলি রানী দাস তা সমর্থন করেন।

এদিকে সিদ্ধেশ্বর জিপির এপি সদস্যা কংগ্রেস দলের সুদীপ্তা নাগের নাম প্রস্তাব করেন লেবারপুতা জিপির এপি সদস্য কুলবাসী দাস, সমর্থন করেন কাটিগড়া জিপি এপি সদস্যা মনোয়ারা বেগম বড়ভূঁইয়া। তারপর মৌখিক ভাবে দুপক্ষেরই সমর্থনে ৫জন করে এপি সদস্যের সমর্থন থাকায় ব্যালেট বাক্সের মাধ্যমে নির্বাচনের ব্যবস্থা করা হয়। তখনও বাবলি ও সুদীপ্তা ৫টি করে ভোট পেয়ে যান। তাই কাগজে এই দুজনের নাম লিখে বাছাই করে লটারির মাধ্যমে বাবলি দাস এপি সভানেত্রী পদে নির্বাচিত হন।

উল্লেখ্য, বাবলি দাস কংগ্রেস দলের হয়ে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দিতা করে জয় লাভ করেছিলেন, কিন্তু সম্প্রতি তিনি ভারতীয় জনতা পার্টিতে যোগদান করায় একক ভাবে কংগ্রেসের এপি বোর্ড গঠনের স্বপ্ন ভেঙ্গে যায়। শেষে লটারির মাধ্যমে এপি সভানেত্রী নির্বাচিত হলেও বিজেপিই শেষ হাসি হাসি। গোবিন্দপুর জিপির এপি সদস্য দিব্যজ্যোতি পাল বোর্ডের সহ-সভাপতি ব্যালেট ভোটের মাধ্যমে নির্বাচিত হন।

এদিকে নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা হতেই বিডিও কক্ষের বাইরে অপেক্ষারত বিজেপি সমর্থকরা উল্লাসে ফেটে পড়ে ‘ভারত মাতা কি জয়’, ‘বিজেপি জিন্দাবাদ’, ‘জয় শ্রীরাম’ ধ্বনিতে খন্ড কার্য্যালয় চত্বর মুখরিত করে।

অন্যদিকে, বাবলি দাস কংগ্রেস দল থেকে নির্বাচনে জয়লাভ করে বিজেপিতে যোগদান করায় কংগ্রেসের তৃণমূল কর্মীদের মধ্যে তীব্র ক্ষোভ দেখা গেছে।

আজকের এ অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন, প্রজেক্ট ম্যানেজার হানিফ। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, সাংসদ সুস্মিতা দেবের প্রতিনিধি পাপন দেব, ব্লক কংগ্রেস সভাপতি হুসেন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক(প্রশাসন) এনামুল হক লস্কর, সাধারণ সম্পাদকদ্বয় মৃদুল নাগ, জাহাঙ্গীর আলম লস্কর, দক্ষিণ কাটিগড়া জেলা পরিষদ সদস্য অসীম দত্ত, বিজেপি কাটিগড়া মন্ডল উপ-সভাপতিদ্বয় সন্দীপ পাল ও সজল দেব, যুবমোর্চা জেলা সভাপতি মনোজ তালুকদার, যুবমোর্চা মন্ডল সভাপতি বাবলা দেব সহ কংগ্ৰেস-বিজেপি উভয় দলের অসংখ্য নেতা-কর্মীরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here